বৃহস্পতিবার, ৮ অক্টোবর, ২০২০

রাজ্যে মিউচুয়াল শিক্ষক বদলি আরও সহজ, লাগবে না প্রধান শিক্ষকের এনওসি‌: শিক্ষামন্ত্রী



পুবের কলম প্রতিবেদকঃ এখন থেকে স্কুল শিক্ষকদের মিউচ্য‍ুয়াল বদলির ক্ষেত্রে লাগবে না প্রধান শিক্ষকদের ‘নো অবজেকশন সার্টিফিকেট’। ‘মিউচ্য‍ুয়াল ট্রান্সফার’-এর ক্ষেত্রে শিক্ষকদের আর ‘হিয়ারিং’-এর ম‍ুখোম‍ুখিও হতে হবে না।  


বুধবার বিকাশ ভবনে ‘স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপ’ এবং ‘শিক্ষকদের বদলির পোর্টাল-এর ভার্চুয়াল উদ্বোধন অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন, স্কুলের শিক্ষক-শিক্ষিকাদের বদলির নিয়মে আরও সরলীকরণ করা হচ্ছে। নতুন নিয়ম অনুসারে প্রাথমিক, উচ্চ প্রাথমিক, মাধ্যমিক এবং উচ্চ মাধ্যমিক স্কুলের শিক্ষক বদলিতে আর লাগবে না প্রধানশিক্ষকদের ‘নো অবজেকশন সার্টিফিকেট’। 


নয়া এই নিয়মের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য প্রসঙ্গে শিক্ষামন্ত্রীর বক্তব্য, শিক্ষকদের নিজের জেলা বা পার্শ্ববর্তী জেলায় নিয়ে আসার জন্য এই উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। শিক্ষক বদলিতে সরলীকরণ করা হলেও এই প্রক্রিয়া পুরোপুরি অনলাইনেই হবে। শিক্ষা দফতরের পোর্টালেই আবেদন করা যাবে। আবেদনের জন্য কোনও টাকাও দিতে হবে না শিক্ষক-শিক্ষিকাদের। 


শিক্ষামন্ত্রী আরও বলেন, ইতিমধ্যে ৬ হাজার প্রাথমিক শিক্ষককে মিউচ্য‍ুয়াল বদলির জন্য অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এই বদলির কাজকর্ম কতটা এগিয়েছে, সেই বিষয়ে সাত দিনের মধ্যে শিক্ষামন্ত্রীকে রিপোর্ট দিতে বলা হয়েছে। বদলির নিয়ম সরলীকরণের জন্য জেলা স্কুল পরিদর্শকদের লক্ষ্য রাখতে বলা হয়েছে। শিক্ষামন্ত্রীর এ দিন নিজেই অভিযোগ করে বলেন, বদলি হলেও অনেক শিক্ষককে ‘নো অবজেকশন সার্টিফিকেট’ দেওয়া হচ্ছে না। 


বলা হচ্ছে, গেস্ট টিচার নিয়োগ করে তাঁদের বেতন দিতে। তবে এই অভিযোগ উঠলে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে স্কুল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে। শিক্ষামন্ত্রী বলেন, মাধ্যমিক স্কুলের ৪৬৫ জনকে বদলি করা হয়েছে। কিন্তু বদলির ক্ষেত্রে তাঁরা হয়রানি হচ্ছে বলেও অভিযোগ রয়েছে। এই বিষয়টি শিক্ষা দফতরের আধিকারিকদের গুরুত্ব সহকারে দেখার নির্দেশ দিয়ে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, মিউচ্য‍ুয়াল ট্রান্সফার করা হলেও তাঁদের দু’পক্ষকেই ইন্টারভিউয়ের জন্য ডাকা হচ্ছে। এই ইন্টারভিউও করা চলবে না বলে আধিকারিকদের জানিয়ে দিলেন।


করোনা পরিস্থিতির কারণে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা পিছোতে পারে বলে ইঙ্গিত পাওয়া গিয়েছে। এই প্রসঙ্গে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, স্কুল খ‍ুললে পরীক্ষা নেওয়ার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। তবে পরীক্ষা কবে হবে, তা ঠিক করবে মাধ্যমিক বোর্ড এবং উচ্চ মাধ্যমিক কাউন্সিল কর্তৃপক্ষ।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only