বুধবার, ৭ অক্টোবর, ২০২০

হাথরসে যাওয়ার পথে কেরলের সাংবাদিক সহ ৩ জন গ্রেফতার



নয়াদিল্লি, ৭ অক্টোবরঃ হাথরসে যাওয়ার পথে গ্রেফতার হলেন কেরলের এক সাংবাদিক সহ আরও তিনজন। এর আগে হাথরসে নির্যাতিতার বাড়ি যেতে শুক্রবার বাধা পেয়েছিলেন রাহুল ও প্রিয়াঙ্কা গান্ধি। পরের দিন ধস্তাধস্তির শিকার হন। হাথরসে নির্যাতিতার পরিবারের সঙ্গে দেখা করার পর ভীম আর্মি প্রধান চন্দ্রশেখর আজাদের নামে এফআইআর হয়। এবার যে সাংবাদিক ও আরও তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে তাদের বিরুদ্ধে উত্তরপ্রদেশ পুলিশের অভিযোগ, এই চারজনের সঙ্গে পপুলার ফ্রন্ট অফ ইন্ডিয়া (পিএফআই)-এর সঙ্গে যোগ রয়েছে। সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (সিএএ) নিয়ে উত্তরপ্রদেশে প্রতিবাদ করেছিল এই সংগঠন। তাই এই সংগঠনটিকে অনেকদিন থেকেই নিষিদ্ধ করতে চায় যোগী সরকার। 


হাথরসের পথে একটি চেকপোস্টে চারজনের গাড়ি থামিয়ে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। জানা গিয়েছে, ধৃতদের নাম আতিকউর রহমান, সিদ্দিকী কাপ্পান, মাসুদ আহমেদ, আলম। পুলিশ বিবৃতি দিয়েছে বলেছে, বিশেষ সূত্রে খবর পেয়েছিল, ‘দিল্লি থেকে সন্দেহজনক লোকজন হাথরস আসছে’। তাঁদের মোবাইল, ল্যাপটপ, বইপত্র বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। সেগুলো ‘রাজ্যের আইন-শৃঙ্খলার ওপর প্রভাব ফেলতে পারে।’ জেরায় তাঁরা জানিয়েছেন, পিএফআইএর সঙ্গে যোগ রয়েছে তাঁদের। এই পিএফআই আবার ক্যাম্পাস ফ্রন্ট অফ ইন্ডিয়ার শাখা সংগঠন। 


কেরলের কর্মরত সাংবাদিকদের সংগঠন জানিয়েছে, সিদ্দিকী কাপ্পান একজন সাংবাদিক। সংগঠনের দিল্লি শাখার সম্পাদক তিনি। সাংবাদিকদের সংগঠন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথকে চিঠি লিখেছে। তাতে জানিয়েছে, ‘আমরা বুঝতে পেরেছি হাথরস টোল প্লাজা থেকে উত্তরপ্রদেশ পুলিশ কাপ্পানকে আটক করেছে। আমরা এবং দিল্লির কয়েকজন আইনজীবী তাঁর সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেও পারিনি। তাঁকে হেফাজতে নেওয়ার বিষয়ে উত্তরপ্রদেশ বা হাথরস পুলিশ কোনও তথ্য দেয়নি।’ 


কাপ্পান আগে পিএফআইএর সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। কিন্তু পরে আইনি নোটিশ নিয়ে জানিয়েছেন, এখন আর ওই সংগঠনের সদস্য নন। কাপ্পান মালয়ালম ওয়েবসাইট আঝিমুখামএ কাজ করেন। ওই ওয়েবসাইটের সম্পাদকও জানিয়েছেন, পিএফআইএর সঙ্গে কাপ্পানের এখন কোনও যোগ নেই। তিনি হাথরসে সংবাদ সংগ্রহের জন্য গিয়েছিলেন। সাংবাদিককে আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করে কেরলের কর্মরত সাংবাদিকদের সংগঠনের সভাপতি কে পি রেজি বলেন, আমরা ডিজিপি সহ ইউপি-এর কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করেছি এবং কেরলের সরকার থেকে হস্তক্ষেপ চাইছি। আমরা কেন্দ্রীয় সরকারের সঙ্গেও যোগাযোগ করেছি।


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only