রবিবার, ২২ নভেম্বর, ২০২০

উত্তরপ্রদেশে চোলাই মদ খেয়ে মৃত‍্য‍ু ৭ জনের, অসুস্থ ১৫



প্রয়াগরাজ, ২২ নভেম্বরঃ যোগী রাজ্যে বিষাক্ত পানীয় খেয়ে মৃত‍্য‍ু ৭ জনের। গুরুতর অসুস্থ ১৫ জন। ঘটনাটি ঘটেছে উত্তরপ্রদেশের আমিলিয়া গ্রামে। এই ঘটনায় দেশি মদের দোকানের মালিক দম্পতিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ঘটনার সূত্রপাত বৃহস্পতিবার রাত থেকে। ওই দোকানে মদ্যপান করেন স্থানীয়রা। রাতে বাড়ি ফিরেই অসুস্থ হয়ে পড়েন অনেকে। পরিস্থিতি খারাপ হওয়ায় স্থানীয় স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ভর্তি করা হয়। তাদের স্বাস্থ্যের অবস্থা অবনতি হওয়ায় রেফার করা হয় অন্য হাসপাতালে। সেখানে ৭ জনের মৃত‍্য‍ু  হয়েছে। গুরুতর অসুস্থ আরও ১৫জন। 


স্থানীয়দের অভিযোগ, দোকান মালিক দম্পতির বিরুদ্ধে চোলাই মদ বিক্রির একাধিক অভিযোগ রয়েছে। তারপরও ওই এলাকাতে তারা ৩টে দোকান চালায়। এর পেছনে প্রশাসনিক গাফিলতিকেই কাঠগড়ায় তুলেছেন তারা। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন এক যুবকের মা জানিয়েছেন, ওই মদ পান করার পরই তাঁর ছেলে অনিল অসুস্থ হয়ে পড়েন। অসুস্থদের পরিবারের অনেকেই ঠিক এই অভিযোগই করেছেন। অন্যদিকে, কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধি এই ঘটনায় কাঠগড়ায় তুলেছেন যোগী আদিত্যনাথের সরকারকে। 


এ প্রসঙ্গে টু্ইটারে তিনি ক্ষোভ উগরে দিয়ে লেখেন, ‘বিষমদ খেয়ে উত্তরপ্রদেশের লখনউ, ফিরোজাবাদ, হাপুর, মথুরা ও প্রয়াগরাজে বহু মানুষ মারা গেছেন। সরকার কেন বিষাক্ত মদ মাফিয়াদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে ব্যর্থ হচ্ছে? এরজন্য কে দায়ী?’ এই ঘটনার পূর্ণাঙ্গ তদন্তের আশ্বাস দিয়েছেন প্রয়াগরাজের জেলাশাসক ভানু চন্দ্র। তিনি জানান, তাদেরগুলি ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। পাশাপাশি মদের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে। দু’টোর রিপোর্ট এলেই মৃত‍্য‍ুর আসল কারণ জানা যাবে।উল্লেখ্য, ২০১৯-এ উত্তরপ্রদেশে বিষমদ খেয়ে মারা যান ১০০ জনের বেশি। চোলাই মদ বিক্রির অভিযোগে উত্তরপ্রদেশ ও উত্তরাখণ্ড থেকে ১৩০ জনকে গ্রেফতার করা হয়। 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only