বুধবার, ১৮ নভেম্বর, ২০২০

মাদ্রাসার উন্নয়ন নিয়ে সংখ্যালঘুমন্ত্রীকে স্মারকলিপি



পুবের কলম প্রতিবেদকঃ রাজ্যের অনুমোদনহীন মাদ্রাসাগুলির বিভিন্ন দাবিদাওয়া নিয়ে রাজ্যের সংখ্যালঘু বিষয়ক ও মাদ্রাসা শিক্ষা রাষ্ট্রমন্ত্রী গিয়াসউদ্দিন মোল্লাকে স্মারকলিপি দিল পশ্চিমবঙ্গ অনুমোদনহীন মাদ্রাসা শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মী কল্যাণ সমিতি। মঙ্গলবার স্মারকলিপি দিয়ে সংগঠনের পক্ষ থেকে বলা হয় রাজ্যের ম‍ুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাজ্যের মাদ্রাসা শিক্ষার উন্নয়নে এবং পিছিয়েপড়া সংখ্যালঘু ছেলেমেয়েদের উন্নতির জন্য ১০ হাজার মাদ্রাসাকে অনুমোদন দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছিলেন। 


সেই মর্মে ২০১১ সালের পর থেকে বেশ কয়েক হাজার মাদ্রাসা ডিএলআইটি টিম দ্বারা পরিদর্শন করিয়েছিলেন। কিন্তু এত বছর হয়ে গেলেও সেই সমস্ত মাদ্রাসাকে অনুমোদন দেওয়া হয়নি। এখন পর্যন্ত ম‍ুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে ২৩৪টি মাদ্রাসাকে অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। ইতিমধ্যে রাজ্য সরকার জানিয়েছে ১৫৩টি মাদ্রাসাকে পরিকাঠামো উন্নয়নের জন্য ৩১ কোটি টাকা বরাদ্দ করেছে। এর বাইরে আর কোনও কিছুই পায়নি ওই সমস্ত মাদ্রাসা। অনুমোদনহীন মাদ্রাসাগুলির অবস্থা বেশ সচোনীয়। 


এই মাদ্রাসাগুলিকে আরও আর্থিক সাহায্যের জন্য সংখ্যালঘু বিষয়ক মন্ত্রীর কাছে দাবি জানানো হয়। স্মারকলিপিতে সংগঠনের পক্ষ থেকে এ দিন দাবি জানিয়ে বলা হয় ম‍ুখ্যমন্ত্রী প্রতিশ্রুতিমতো ১০ হাজার অনুমোদনহীন মাদ্রাসাগুলিকে অনুমোদন দিতে হবে। অনুমোদনপ্রাপ্ত ২৩৪টি মাদ্রাসাকে সরকারি সমস্ত সুযোগ সুবিধা প্রদান করতে হবে। অনুমোদনহীন মাদ্রাসাগুলি স্টাফপ্যাটান অনুসারে আর্থিক সুবিধাসহ শিক্ষক শিক্ষাকর্মীদের বেতন দিতে হবে। এ দিন সংখ্যালঘু বিষয়ক মন্ত্রীর কাছে আরও দাবি জানিয়ে বলা হয়। মাদ্রাসাগুলির পরিকাঠামোগত উন্নতিসহ ছাত্রছাত্রীদের তথাকত শিক্ষাকেন্দ্রের মতো মিড-ডে মিল, পোশাক, জুতো সহ অন্যান্য সুবিধা প্রদান করতে হবে।


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only