রবিবার, ১৫ নভেম্বর, ২০২০

ফুসফুস,কিডনি বিকল করতে পারে করোনা , সর্তক করছে স্বাস্থ্যভবন



পুবের কলম প্রতিবেদক:­ করোনা নিয়ে ফের নতুন করে স্বাস্থ্যভবনের তরফে রাজ্যের কলকাতা মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতাল,মুর্শিদাবাদ মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতাল,বিভিন্ন জেলার মুখ্য স্বাস্থ্য-আধিকারিক,সমস্ত বেসরকারি কোভিড হাসপাতালের মেডিক্যাল সুপারদের পাঠানো হল কোভিড ম্যানেজমেন্ট প্রোটোকল। করোনা ফুসফুস ও কিডনি বিকল করে দিতে পারে। এমনই সর্তকতার কথা বলেছে রাজ্যের স্বাস্থ্যভবন। 

স্বাস্থ্যভবনের তরফে বলা হয়েছে  তাঁদের বিশেষজ্ঞ দল কয়েকটি করোনা হাসপাতালে পরিদর্শন করেছেন এবং কিছু সংশোধণের প্রয়োজনীয়তা লক্ষ্য করেছেন। তাঁদের পরামর্শ মেনে করোনা কোমাবিলায় এই সব পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে। প্রথমেই তাঁরা করোনা রোগীর অবস্থাকে তিনটি পর্যায়ে ভাগ করেছেন। প্রথম পর্যায়ে উপসর্গহীন দ্বিতীয় পর্যায়ে উপসর্গযুক্ত মাঝারি অবস্থা। তৃতীয় পর্যায়ে মারাত্মক।

বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ হচ্ছে পাঁচ থেকে দশ দিনের মাথায় করোনা রোগী হাইপার,ইনফ্লেমেটরি স্টেট দেখা দিতে পারে। এই সময় এরিথ্রোসাইট সেডিমেন্টেশন রেট (ইএসআর) বা লোহিত রক্তকণিকার থিতানোর হার,সিআরপি ইত্যাদি বাড়তে পারে। ফলে এই সব লক্ষণ দেখে রোগের অগ্রগমন বোঝা যাবে। তাই সেগুলির উপর নজরদারি চালাতে হবে। স্বাস্থ্যভবনের তরফে আরও বলা হয়েছে বেশিরভাগ ক্ষেত্রে করোনা রোগীরা মাঝারি সংক্রমণযুক্ত। তবে কিছু কিছু রোগীর শরীরে অন্যান্য কতকগুলি লক্ষণ দেখা দিচ্ছে।  দীর্ঘস্থায়ী ক্লান্তি,শরীরে একটানা ব্যথা,শ্বাসকষ্ট ইত্যাদি দেখা যাচ্ছে। এই ধরণের হাইপার-ইনফ্লেমেটরি অবস্থা মাল্টি-অর্গ্যান নিস্ক্রিয় করে দিতে পারে। তাই সর্তকতা হিসাবে করোনা পরবর্তী সময়ে ফুসফুস ও কিডনি ঠিক আছে কিনা ডায়াবেটিস ও হৃদযন্ত্রের পরীক্ষা করা দরকার।


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only