শুক্রবার, ২০ নভেম্বর, ২০২০

সংখ্যালঘু ভোট ভাগ রুখতে মালদায় সেলকে আরও সক্রিয় হওয়ার পরামর্শ মন্ত্রীর



পুবের কলম প্রতিবেদক, চাঁচল:­ একুশের বিধানসভা নির্বাচন দরজায় কড়া নাড়ছে। এই পরিস্থিতিতে নিজেদের শক্তি ধরে রাখার পাশাপাশি বিরোধীদেরও নিজেদের পক্ষে টানতে উদ্যোগী হয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস। বিশেষত দলের ভিত্তি বলে পরিচিত সংখ্যালঘু ভোটকে নিজেদের পক্ষে ধরে রাখতে কোনওরকম খামতি রাখতে চাইছে না শাসকদল। এই সংখ্যালঘু ভোটে যাতে কেউ ভাগ বসাতে না পারে সেদিকে বিশেষ নজর রয়েছে দলের। সংখ্যালঘু ভোট পাওয়ার লড়াইয়ে আর সকলকে টেক্কা দিতে দলের সংখ্যালঘু সেলকে জোর কদমে মাঠে নেমে পড়তে বললেন রাজ্য তৃণমূলের সাধারণ সম্পাদক ও মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম। মালদার সুজাপুরে বৃহস্পতিবার প্লাস্টিক কারখানায় ভয়াবহ বিস্ফোরণে মৃত ও আহতদের পরিবারকে রাজ্য সরকারের তরফে ক্ষতিপূরণের চেক দিতে এসে দলের বিভিন্ন নেতৃত্বের সঙ্গে বৈঠক করেন মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম ববি। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় মহানন্দা ভবনে জেলা তৃণমূলের চেয়ারম্যান হাফেজ নজরুল ইসলামকে তিনি নির্দেশ দেন যে, সংখ্যালঘু ভোটব্যাঙ্ক অটুট রাখতে সংখ্যালঘু সেলকে আরও সক্রিয় হতে হবে। 

নজরুল ইসলাম জানিয়েছেন, দীর্ঘদিন ধরে সংখ্যালঘু অধ্যুষিত এলাকায় কল্যাণমূলক কাজের অভিজ্ঞতা রয়েছে তার। সেই অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে একুশের বিধানসভা নির্বাচনকে পাখির চোখ করে মাঠে ময়দানে নামতে চলেছে মালদা জেলা তৃণমূল কংগ্রেস সংখ্যালঘু সেল। শুক্রবার সকালেও সংখ্যালঘু সেলের জেলা সভাপতি মোশারফ হোসেন ও চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম সহ এক ঝাঁক প্রতিনিধি ফিরহাদ হাকিমের সঙ্গে দেখা করেন। সংখ্যালঘু সেল মন্ত্রীর কাছে আবদার করেছে যে, তাদের কাজ করার সুযোগ দিতে হবে। রাজ্য নেতৃত্বের স্পষ্ট নির্দেশ পেলেই তারা স্বাধীনভাবে দলের তরফে বিভিন্ন কর্মসূচি রুপায়িত করতে পারবে।

 এ প্রসঙ্গে সংখ্যালঘু সেলের সভাপতি মোশারফ হোসেন জানিয়েছেন, ইতিমধ্যেই তারা ব্লকগুলিতে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের বিশিষ্টজনদের আমন্ত্রণ করে একটি সভা করার কর্মসূচি হাতে নিয়েছেন। একুশের নির্বাচনে সংখ্যালঘুদের করণীয় কী এবং সাম্প্রদায়িক মনোভাবাপন্ন দলগুলিকে ঠেকাতে কোন কোন বিষয়ে আরও জোর দিতে হবে এ বিষয়ে শীঘ্রই রুপরেখা তৈরি করবে সংখ্যালঘু সেল। সেলের জেলা চেয়ারম্যান হাফেজ নজরুল ইসলামও জানিয়েছেন, তিনি দীর্ঘদিন ধরে জমিয়তে উলামায়ে হিন্দের জেলা সম্পাদক পদে রয়েছেন। ফলে জেলার মসজিদ-মাদ্রাসার ইমামদের সঙ্গে তাঁর যোগাযোগ রয়েছে। সেই যোগসূত্রকে কাজে লাগিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের পক্ষে জনমত তৈরিতে তাঁরা পিছপা হবেন না। 

এছাড়াও সংখ্যালঘু দলের প্রতিনিধিদের সঙ্গে আলোচনায় মন্ত্রী জানান, সংখ্যালঘু ভোট ভাগ রুখতে হলে আরও বেশি বেশি করে কর্মসূচি নিতে হবে সংখ্যালঘু সেলকে। রাজ্য নেতৃত্বের সাথে আলোচনা করে স্পষ্ট দিক নির্দেশনা তৈরিতে তিনি সচেষ্ট হবেন বলেও জানিয়েছেন ববি হাকিম। 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only