শুক্রবার, ২০ নভেম্বর, ২০২০

মুখ্যমন্ত্রীও তাড়ায়নি,আমিও দল ছাড়িনিঃশুভেন্দু

রামনগরের মঞ্চে শুভেন্দু

 

সুরাজ মিশ্র,রামনগরঃ­ বহুদলীয় গণতন্ত্রে মতবিরোধ হয়। বিভেদ থেকে বিচ্ছেদও হয়। তবে নিয়ন্ত্রকরা যতক্ষণ পর্যন্ত না তাড়ায়, ততক্ষণ পর্যন্ত যে তিনি কোনও কথা বলবেন না, তা রামনগরের সভা থেকে স্পষ্ট করে দিলেন শুভেন্দু অধিকারী। আর আজকের সভা থেকেই কার্যত তাঁর দলবদলের জল্পনায় যবনিকা টানলেন শুভেন্দু তা বলা যেতেই পারে।

সাম্প্রতিক সময়ে তাঁর দল তৃণমূলের সঙ্গে মনোমালিন্যের জেরে গত ১০ নভেম্বর নন্দীগ্রামে এবং আজ বৃহস্পতিবার রামনগরে তিনি দলত্যাগের কথা ঘোষণা করতে পারেন বলে জল্পনা তৈরি হয়েছিল। সেই জল্পনার বিরুদ্ধে অবশ্য মুখ খুলেছেন স্বয়ং শুভেন্দু অধিকারী।

পূর্ব মেদিনীপুর জেলায় রামনগর আরএসএ ময়দানে, পূর্ব মেদিনীপুর-২ রেঞ্জের সকল ব্যাঙ্ক ও সমবায় সমিতিগুলির যৌথ উদ্যোগে, ৬৭তম নিখিল ভারত সমবায় সপ্তাহ উদ্যাপনের সমাবেশে মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী বলেন যে, আজ দেশের প্রয়াত প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধির ১০৩তম জন্মদিনে তাঁর ছবিতে মাল্যদান করছিলাম দেখে এক সাংবাদিক বললেন,মিডিয়া নাকি এ থেকে দলবদলের কথা ভাবছে। আপনারা টিআরপির জন্য যা খুশি করতে পারেন। কিন্তু আমি একটি দলের প্রাথমিক,সক্রিয় সদস্য,মন্ত্রিসভার সদস্য। মুখ্যমন্ত্রী তাড়াননি,আমিও ছাড়িনি। নিয়ন্ত্রকরা তাড়াননি, আমিও ছাড়িনি। মতভেদ থেকে বিচ্ছেদ হয়, কিন্তু বিদ্যাসাগরের জেলার লোক এত অনৈতিক নয় যে এই মঞ্চে দলবদলের কথা বলব। এ দিন ফের শুভেন্দু অধিকারী জানান, তিনি যেসব পদে রয়েছেন, সবই নির্বাচিত,কোনওটাই মনোনীত নয়।

তিনি বলেন, আমি বসন্তের কোকিল নই। লকডাউনে থেকেছি,করোনায় থেকেছি,আমফানে থেকেছি,সারা বছর থাকি। তাই সব সময় ‘ভোট চাই ভোট দাও,ভেঙে দাও গুঁড়িয়ে দাও’ বলি না। স্থান,কাল,পাত্র,ব্যানার জানে শুভেন্দু অধিকারী। নন্দীগ্রামের মঞ্চে যেমন রাজনৈতিক কথা বলি না,তেমন মন্ত্রিসভার সদস্য থেকে রাজনৈতিক কথা এখানে বলা যায় না। হাইপ তুলে এসেছিল মিডিয়া,দায়িত্ব তাদের। এটা সমবায়ীদের মেগা শো। তিনি আরও বলেন যে, কোনও রাজ্য বা দেশ এত বড় সমবায় সভা করতে পারবে না। দশকের পর দশক এই আন্দোলনের সঙ্গে যুক্ত বলেই করতে পারি। অন্তত ৫ লক্ষ পরিবারের সঙ্গে সমবায়ের মাধ্যমেই আমার সম্পর্ক আছে। সবার সঙ্গে আত্মিক সম্পর্ক। এর পরেই শুভেন্দু অধিকারীর স্পষ্ট ঘোষণা আমি কোভিডে আক্রান্ত হওয়ার সময় যেভাবে পাশে থেকেছেন,আগামী দিনে এই পান্তা খাওয়া, গামছা পরা ছেলেটার পাশে থাকবেন তো?


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only