শুক্রবার, ৬ নভেম্বর, ২০২০

নভেম্বরের শুরুতেই গত বছরের রেকর্ড ভেঙে নামল পারদ



পুবের কলম প্রতিবেদক­: সন্ধ্যের পর থেকেই বাতাসে হিমেল পরশ। আর ভোরের দিকে হালকা কুয়াশা। নভেম্বরের শুরুতেই রাজ্যজুরে এখন শীতের আমেজ। আবহাওয়া দফতরের রিপোর্ট বলছে গত বছর নভেম্বরের শুরুতে এতটা নামেনি পারদ। কিন্তু এবছর নভেম্বরের শুরুতেই হু হু করে নেমে গেল তাপমাত্রা। ফলে এবার জাঁকিয়ে শীত পড়ার পাশাপাশি শীতের ইনিংসও দীর্ঘ সময় ধরে চলতে পারে বলেই মনে করছেন আবহাওয়াবিদরা।


শুক্রবার কলকাতায় পারদ নেমেছিল ১৯.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। যা স্বাভাবিকের চেয়েও ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস কম ছিল। অথার্ৎ এই সময়ে মহানগরের স্বাভাবিক তাপমাত্রা থাকে ২১.৮ ডিগ্রি। আবাহওয়া দফতরের রেকর্ড বলছে গত বছর নভেম্বরেই ২১ ডিগ্রির নিচে পারদ নামেনি। তবে এই তাপমাত্রা হয়েছিল ২৯ তারিখে। কিন্তু  এবছর চলতি মাসের শুরুতেই একধাক্কায় অনেকটাই নেমে গিয়েছে পারদ। আবহাওয়া দফতর সূত্রে জানা গিয়েছে আগামী কয়েকদিন নিম্নচাপ বা মেঘলা থাকার কোনও সম্ভাবনা নেই। ফলে রাজ্যে অবাধেই প্রবেশ করবে উত্তুরে হিমেল হাওয়া। এই কারণে আগামী ২ থেকে ৩ দিন তাপমাত্রা আরও নামবে।


জেলাগুলিতে শীতের আমেজ আরও কিছুটা বেশি। একাধিক জেলায় ভালোয় ঠান্ডা পড়েছে। শ্রীনিকেতনে এদিন ১৫.৬ ডিগ্রিতে নেমেছে পারদ। তেমনিই আসানসোলও ছিল যথেষ্ঠই ঠান্ডা। এখানকার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১৫.৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এর পাশাপাশি,নদীয়া বীরভূম,বাঁকুড়া,পুরুলিয়া এই সমস্ত জেলাগুলিতে ১৭ ডিগ্রির কাছাকাছি ছিল সর্বনিম্ন তাপমাত্রা। জেলাগুলিতে রাত এবং সকালের দিকে শীতের মোটা পোশাক ব্যবহার করছেন অনেকেই। রাতের পর থেকে বেশকিছু জায়গায় বেশ কুয়াশাও পড়ছে। ফলে শীতের আমেজ ভালোই উপভোগ করছেন রাজ্যবাসী।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only