বুধবার, ৩০ ডিসেম্বর, ২০২০

জট কাটাতে আজ ফের বৈঠক বিক্ষুব্ধ কৃষকদের সঙ্গে,সমাধান সূত্র মেলে কীনা নজর দেশবাসীর




নয়াদিল্লি, ৩০ ডিসেম্বর: পাঁচ দফা আলোচনা সারা। মেলেনি সমাধান সূত্র। কৃষি আইনের সুবিধা বোঝানোর চেষ্টা করেছেন স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী। এরপরও দাবিতে অনড় অন্নদাতারা। আন্দোলনরত কৃষকদের একটাই বক্তব্য, বিতর্কিত ৩ আইনের প্রত্যাহার এবং এমএসপি নিয়ে আইনি আশ্বাস। এই অবস্থায় আজ ফের আন্দোলনরত কৃষকদের সঙ্গে বৈঠকে বসতে চলেছে কেন্দ্র। ষষ্ঠ দফার এই আলোচনায় কোন সমাধানসূত্র মেলে কীনা, সেদিকে তাকিয়ে গোটা দেশ।


দিন যত যাচ্ছে আন্দোলনের ঝাঁঝ তত বাড়ছে। বৈঠকে এসে আলোচনার মাধ্যমে সমাধান সূত্র খোজার বার্তা দিয়েছিল কেন্দ্র। বৈঠকের দিন ও সময় নির্ধারণ করার দায়িত্বও দেওয়া হয় কৃষকদের। জবাবে আলোচনায় বসতে রাজি হয় আন্দোলনরত ৪০টি কৃষক সংগঠনের যৌথ মঞ্চ। পাশাপাশি বলা হয়, আলোচনা হবে শুধুমাত্র তিন কৃষি আইন, বিদ্যুৎ বিল প্রত্যাহার এবং দূষণ থাকাতে কেন্দ্রের নতুন আইনে কৃষি ক্ষেত্রকে বাদ দেওয়ার পরবর্তী পদক্ষেপ কী হবে, তা ঠিক করা নিয়ে। যদিও কেন্দ্রের তরফে জানানো হয়, বৈঠক হবে খোলা মনে। কোন রকম শর্ত আরোপ করা যাবে না।


একদিকে নিজেদের দাবিতে অনড় আন্দোলনরত কৃষকরা। অন্যদিকে নিজেদের ঘুঁটি সাজিয়ে রাখছে কেন্দ্র সরকারও। বৈঠকের আগে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী তথা দলের অন্যতম শীর্ষ নেতা অমিত শাহের সঙ্গে বৈঠক করেন কৃষিমন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমর ও পীযূষ গোয়েল। এদিনের বৈঠকে মন্ত্রীরা কী কী কথা বলবেন এবং সরকার কতদূর পর্যন্ত দরাদরি করবেন সেই সীমানা নির্ধারণ করে দেন মোদি সরকারের সেকেন্ড-ইন-কমান্ড। বৈঠকে কোনও সমাধানসূত্র মেলে কীনা সে দিকেই নজর গোটা দেশের।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only