সোমবার, ২১ ডিসেম্বর, ২০২০

পবিত্র মক্কা ও মদিনা শরীফে ১৫০০ মহিলা কর্মী নিয়োগ



মক্কা, ২১ ডিসেম্বরঃ পবিত্র মক্কা ও মদিনা শরীফে দেড় হাজার মহিলা কর্মী নিয়োগ করছে সউদি আরবের হজ ও উমরাহ মন্ত্রক। রবিবার রিয়াদ প্রশাসনের তরফে জানানো হয়, ভিসন-২০৩০ সফল করতে এবং মহিলা হজযাত্রীদের পরিষেবায় আরও স্বাচ্ছন্দ আনতে এদের নিয়োগ করা হচ্ছে। মক্কা ও মদিনাস্থিত পবিত্র কাবা শরীফ এবং মসজিদে নববীর বিভিন্ন বিভাগে এদেরকে নিয়োগ করা হচ্ছে। এই প্রকল্পে ইতিমধ্যেই ৬০০ মহিলা কর্মীকে টেকনিক্যাল এবং পরিষেবা বিভাগে নিয়োগপত্র দেওয়া হয়েছে। বাকি ৯০০ জনকে অন্যান্য সেক্টরে নিয়োগের জন্য প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে। ইলেকট্রিক যানবাহন, জমজম পানি প্রকল্প, গাইড এবং তথ্য প্রদান, হজ ও উমরাহ সংক্রান্ত প্রশাসনিক বিভাগ, জনসংযোগ, মিডিয়া, অ্যাকাউন্টস প্রভৃতি বিভাগে এদেরকে নিযুক্ত করা হবে।  তবে এদের ইউনিফর্ম বা পোশাক কী হবে তা জানানো হয়নি। 


উল্লেখ্য, সউদি প্রিন্সের স্বপ্নের প্রকল্প ভিশন-২০৩০ নিয়ে সে দেশের সরকার সবরকম প্রয়াস চালাচ্ছে। এরই অন্যতম অঙ্গ হল আগামী ১০ বছরের মধ্যে দেশটিকে ‘মধ্যপন্থী ইসলামের দেশ’ হিসেবে তৈরি করা হবে। এর মূল কথা হল পশ্চিমা বিশ্বের মানুষদের ভ্রমণ ও থাকার উপযুক্ত পরিবেশ তৈরি করা। যাতে তারা সউদির নাম শুনলে নাক না সিঁটকায়। অর্থাৎ তারা যেন দেশটিকে চিরকাল অচ্ছুত করে না রাখে। এসব বিবেচনা করেই পশ্চিমাদের রুচি-পছন্দ মাফিক খোলামেলা সংস্কৃতি ও মনোরঞ্জনের যাবতীয় বন্দোবস্ত করছে সউদি সরকার। 


এর অন্যতম কারণ হল পর্যটন খাতে আয় বৃদ্ধি এবং পশ্চিমাদের তাঁবেদারি করে একবিংশ শতকেও রাজতন্ত্র কায়েম রাখা। এর জন্য তারা ইসলামের পারিবারিক ও সামাজিক নীতিমালা থেকে শুরু করে ইসলামী শরীয়াহকে পর্যন্ত সেন্সর ও শিথিল করছে। পাশাপাশি সউদি যুবরাজের স্বপ্ন পূরণে নারীদের অবাধ স্বাধীনতা দেওয়া হচ্ছে, সিনেমা-থিয়েটার পুনরায় চালু করা হয়েছে, পুরুষ অভিভাবক ছাড়াই মহিলাদেরকে যেথা ইচ্ছা সেথা যাওয়ার আইনি ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। এমনকী ‘হালাল নাইটক্লাব’ পর্যন্ত চালু করা হয়েছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only