রবিবার, ২০ ডিসেম্বর, ২০২০

মার্কিন ইতিহাসে মন্ত্রিসভায় এই প্রথম আদি অধিবাসী



ওয়াশিংটন, ২০ ডিসেম্বরঃ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে এই প্রথম আদি অধিবাসী সম্প্রদায় থেকে একজনকে মন্ত্রিসভায় দায়িত্ব দেওয়া হচ্ছে। সদ্য নির্বাচিত মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের মন্ত্রিসভায় আমেরিকান আদি অধিবাসী মহিলা ডেবরা এন হালান্ডকে নিযুক্ত করা হচ্ছে। হালান্ডই একমাত্র কংগ্রেস সদস্য, যিনি আদি অধিবাসী হিসেবে মার্কিন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ইন্টেরিয়র মন্ত্রণালয়ের নেতৃত্ব দেবেন। শুধুমাত্র সমাজকর্মীরাই নয়, বহু মার্কিন কংগ্রেস নেতা হালান্ডকে এই দায়িত্ব দেওয়ার অনুরোধ করেছিলেন বলে জানা যায়। মূলত সরকারি ভূমি ও প্রাকৃতিক সম্পদের দেখভাল করে যুক্তরাষ্ট্রের এই ইন্টেরিয়র মন্ত্রণালয়। 


আদিবাসী আমেরিকানদের সঙ্গে কাজ এবং পরিবেশনীতি বাস্তবায়নেও মন্ত্রণালয়টির ভূমিকা বেশ গুরুত্বপূর্ণ। বিশ্বের অনেক দেশে আইন-শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণও এই ইন্টেরিয়র মন্ত্রণালয়ের আওতায় থাকে। এর আগে কখনোই কোনও আদিবাসী আমেরিকান মন্ত্রিসভায় স্থান পাননি। নিউ মেক্সিকো থেকে প্রতিনিধি পরিষদে যাওয়া হালান্ডকে বাইডেনের নতুন মন্ত্রিসভায় নিতে আদিবাসীদের অধিকার নিয়ে কাজ করা বিভিন্ন সংগঠন ও ডেমোক্র্যাট প্রগতিশীল অংশের দাবি ছিল। 


উল্লেখ্য, ৬০ বছর বয়সী ডেবরা এন হালান্ড লাগুনা পুয়েবলো আদিবাসী জনগোষ্ঠীর অন্তর্ভুক্ত। ২০১৮ সালের অন্তর্বর্তী নির্বাচনে যে দু’জন আদিবাসী মহিলা নির্বাচিত হয়ে হাউস অফ রিপ্রেজেন্টিটিভ-এর সদস্য হয়ে ইতিহাস সৃষ্টি করেছিলেন, হালান্ড তার অন্যতম। নিউ ইয়র্ক টাইমসকে দেওয়া এক বক্তব্যে হালান্ড বলেন, ‘ট্রাম্প প্রশাসনের সঙ্গে আদিবাসীদের যে সম্পর্ক খারাপ দিকে গিয়েছিল, তা আবার ঠিক করতে এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মন্ত্রীপরিষদে প্রথম আদিবাসী আমেরিকান সদস্য হিসেবে কাজ করতে আমি গর্ববোধ করব।’ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের হাউস অফ রিপ্রেজেন্টেটিভের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি ডেবরা হালান্ডকে কংগ্রেসের অন্যতম সম্মানিত সদস্য হিসেবে উল্লেখ করেন। প্রগতিশীল ডেমোক্র্যাটিক হিসেবে পরিচিত কংগ্রেসওম্যান আলেক্সান্দ্রিয়া ওকাসিও-কর্টেজ এই ঘটনাকে ‘ঐতিহাসিক’ বলে উল্লেখ করেন।


উল্লেখ্য, ডেবর এন হালান্ডদের ‘রেড ইন্ডিয়ান’ও বলা হয়ে থাকে। ইউরোপীয়দের দেওয়া ‘রেড ইন্ডিয়ান’ নামের আমেরিকার আদিবাসী জনগোষ্ঠী ভাষা ও সাংস্কৃতিক বৈচিত্র্যে বেশ সমৃদ্ধ ছিল। কিন্তু আমেরিকা মহাদেশে ইউরোপের শ্বেতাঙ্গ উপনিবেশের প্রভুরা তাদের ওপর আধিপত্য বিস্তার শুরু করলে আদি অধিবাসী জীবনধারা সংকটের মুখে পড়ে। বিভিন্ন আদিবাসী গোষ্ঠীর মধ্যে পারস্পরিক শত্র‍ুতা থাকায় ইউরোপ থেকে আসা সাস্রাজ্যবাদীরা এর সুযোগ নিয়ে নিজেদের দখলকৃত সীমানা আরও বাড়িয়ে তুলতে থাকে। এবং ক্রমাগত রেড ইন্ডিয়ানদের ওপর অত্যাচার চালাত, খ‍ুন করে তাদের দমিয়ে রাখত।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only