বুধবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০২০

শিশা ও নিকেল মেশানো পানীয় থেকে অন্ধ্রের রহস্যময় রোগ! প্রাথমিক অনুসন্ধান এইমসের




পুবের কলম প্রতিবেদকঃ অন্ধ্রপ্রদেশের এলুরু শহরে রহস্যময় রোগের কারণ হিসাবে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে যে, জল ও দুধে শিশা ও নিকেল মিশ্রিত ছিল। এর ফলে অসুস্থ হয়ে পড়েছেন ৫০০ জনেরও বেশি মানুষ। এইমস, রাজ্য ও কেন্দ্রের স্বাস্থ্য আধিকারিকদের প্রাথমিক অনুসন্ধানের রিপোর্ট জমা দেওয়া হয়েছে মুখ্যমন্ত্রী ওয়াই এস জগন মোহন রেড্ডির কাছে। এইমসের বিশেষজ্ঞদলের অভিমত, শিশা ও নিকেল জল ও দুধে মিশে থাকার ফলে এই দুর্ঘটনা ঘটেছে। এই জল ও দুধ পান করে অনেকেই হঠাৎ অজ্ঞান হয়ে যান, বমি বমি ভাব হয়। জিজিএইচ ডাক্তারদের মতে, এই রোগের উপসর্গ হল, ৩-৫ মিনিটের জন্য স্মৃতি হারিয়ে ফেলা,উদ্বেগ,,বমিভাব,মাথার যন্ত্রণা ও পিঠের ব্যথা। সিএমও জানিয়েছে, ইন্ডিয়ান ইন্সটিটিউট অফ কেমিক্যাল টেকনলজি সহ অন্যান্য প্রতিষ্ঠান পরীক্ষা করে দেখছে। ফলাফল শীঘ্র পাওয়া যাবে। কীভাবে এই ধাতু পানীয়ে মিশল তা নিয়ে তদন্তও শুরু হয়েছে। এই ঘটনায় ৫০৫ জন সংক্রমিত হয়েছেন। তবে এঁদের মধ্যে ৩৭০ জন ইতিমধ্যে সুস্থ হয়ে উঠেছেন। ১২০ জনের চিকিৎসা চলছে হাসপাতালে। আরও ১৯ জনকে আরও ভালো চিকিৎসার জন্য বিজয়ওয়াড়া ও গুন্টুরের হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। কেন্দ্রের স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রক ৩ সদস্যের একটি কমিটি গড়েছে। দুর্ঘটনাপীড়িত এলাকায় এই দল গিয়ে নমুনা সংগ্রহ করে দেখবে।


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only