বুধবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০২০

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বৈঠকের পরও দাবিতে অনড় অন্নদাতারা

 


নয়াদিল্লি, ৯ ডিসেম্বর : কথা ছিল বুধবার বিক্ষুব্ধ কৃষকদের সঙ্গে আলোচনায় বসবেন অমিত শাহ। কিন্তু তার আগেই সারপ্রাইজ বৈঠকের ডাক দেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। যদিও এই আলোচনাতেও সাফ জানিয়ে দিলেন ৩ বিতর্কিত কৃষি আইন প্রত্যাহার করবে না কেন্দ্র।


একদিকে অনড় কৃষকরা। অন্যদিকে নিজেদের অবস্থানে এখনো অটল কেন্দ্র। বৈঠকের আগের দিনই বিক্ষুব্ধদের ডেকে পাঠানো হলেও, কৃষি আইন কোনভাবেই যে প্রত্যাহার হবে না তা জানিয়ে দেন অমিত শাহ। এমনকি আজ কেন্দ্র ও কৃষকদের যে ষষ্ঠ দফায় বৈঠক হওয়ার কথা ছিল তাও বাতিল করা হয়েছে। তবে আজ আন্দোলনকারী কৃষকদের কাছে কৃষি আইনে গোটা ছয়েক সংশোধনী আনার প্রস্তাব দেবে সরকার। 


সূত্রের খবর এদিনের বৈঠকে অমিত শাহ ও নরেন্দ্র সিং তোমর কৃষক প্রতিনিধিদেরকে বোঝানোর চেষ্টা করেন। তাদেরকে বোঝানোর চেষ্টা করা হয়, এই আইন প্রত্যাহার করা হলে দৃষ্টান্ত তৈরি হবে যা ভবিষ্যতে সাংবিধানিক সংকট ফেলবে সরকারকে। নিজেদের অবস্থানকে ব্যাখ্যা করে কৃষকদের কাছে সহযোগিতার আর্জি জানান অমিত শাহ।


তবে সুর নরম করেনি কৃষকরাও। ৩ কৃষি আইন প্রত্যাহার করা না হলে লাগাতার আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দিয়ে রেখেছেন তারা। মঙ্গলবার এর বৈঠকের পর সর্বভারতীয় কৃষক আন্দোলনের নেতা হান্নান মোল্লা জানিয়েছেন, বুধবার আইনের সংশোধনী নিয়ে কেন্দ্রের লিখিত প্রস্তাব পাওয়ার পরে সিংঘু সীমানায় নিজেদের মধ্যে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেবেন তারা। 


অন্যদিকে কৃষকদের একাংশ বার অভিযোগ তুলেছে, কৃষকদের মধ্যে বিভাজন ঘটানোর চেষ্টা করছে কেন্দ্র। খুব কম সময়ে নোটিশে মঙ্গলবার বৈঠকে ডাক দিয়েছিলেন অমিত শাহ। সতীর্থ কৃষক নেতাদের মুখে সেই বৈঠকের কথা শুনে শাহের বাসভবনে উপস্থিত হন তারা। জানতে পারেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সেখানে নেই। এরপর তারা পৌঁছে যান বাংলা সাহেব গুরদ্বার লাগোয়া একটি সরকারি গেস্ট হাউসে। সেখানেও ছিলেন না অমিত শাহ। শেষমেষ তাকে পাওয়া যায় আইসিএআর এর অতিথিশালায়। সেখানেই বিক্ষুব্ধ কৃষকদের সঙ্গে বৈঠকে বসেন অমিত শাহ। এই খবর জানতে পেরে বহু কৃষক নেতা ক্ষোভে ফুঁসছে থাকেন। তারা সোজা রওনা দেন সিংঘুতে। এদের মধ্যে ছিলেন প্রভাবশালী কৃষক নেতা রুলডু সিং মানসাও। অভিযোগ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে কৃষক সংগঠনের নেতাদের মধ্যে বিভাজন ঘটাতে চাইছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only