বৃহস্পতিবার, ৩ ডিসেম্বর, ২০২০

মেঘালয়ে অব্যাহত বাঙালি নিধন, এবার পিটিয়ে হত্যা মুসলিম গাড়ি চালককে



বিশেষ প্রতিবেদকঃ মেঘালয়ে অব্যাহত রয়েছে বাঙালি নিধনযজ্ঞ। সোমবার বাঙালি হিন্দু গাড়ি চালককে কুপিয়ে হত্যা করে মেঘালয়ের একদল খাসি দুষ্কৃতীরা । সেই হত্যার রেশ কাটতে না কাটতেই মঙ্গলবার ফের পিটিয়ে হত্যা করল আর এক বাঙালি ড্রাইভারকে। এবার পিটিয়ে মেরে ফেলা হল অসমের বরাক উপত্যকার বাসিন্দা এক বাঙালি মুসলিম লরিচালককে।

নিহত লরিচালকের নাম দিলোয়ার হোসেন ওরফে সাদ্দাম। বয়স ২৫ বছর। তাঁর বাড়ি কালাইন বড়ইতলি দ্বিতীয় খণ্ড এলাকায়। রবিবার লরি নিযে মেঘালয়ে সিমেন্ট আনতে গিয়েছিলেন দিলোয়ার। মেঘালয়ের ক্লেরিয়াটে মান্ডিহাটি এলাকায় একদল খাসি যুবক তাঁর গাড়ি থামিয়ে হেনস্থা করতে শুরু করে। প্রথমে তাদের বোঝানোর চেষ্টা চালায় দিলোয়ার ও তার সহ-চালক। একসময় তাদের মারধর শুরু করে ও খাসি যুবকরা। অবস্থা বেগতিক দেখে সহ-চালক প্রাণ নিযে সেখান থেকে পালাতে সক্ষম হয়। কিন্তু দিলোয়ার দুষ্কৃতীদের কবল থেকে পালাতে পারেনি। মারধরের খবর পেয়ে ছুটে আসে পুলিশ। তারা উলটে দিলোয়ারকে পাকড়াও করে নিয়ে যায়।

পালিয়ে বাঁচা গাড়ির সহ-চালকের কাছ থেকে ঘটনার কথা জানতে পেরে দিলোয়ারের পরিবারের লোকজন সোমবারই ছুটে যান ক্লেরিয়াটে। কিন্তু তাদের সঙ্গে পুলিশ দিলোয়ারের দেখা করতে দেয়নি বলে পরিবারের লোকজনদের অভিযোগ। তাঁদের জানানো হয়, দিলোয়ারকে জোয়াই জেলে চালান করে দেওয়া হয়েছে।

আশ্চর্যজনকভাবে মঙ্গলবার বেলায় মেঘালয় পুলিশের পক্ষ থেকে দিলোয়ারের পরিবারের লোকজনদের জানানো হয় সে জেলের মধ্যে মারা গেছে। খবরটি চাউর হতেই গোটা এলাকায় তীব্র ক্ষোভের সৃষ্টি হয়। ক্ষোভ আরও বৃদ্ধি পায়। দিলোয়ারের লাশ গ্রহণ করেননি। তাঁদের দাবি, শিলচর মেডিক্যাল হাসপাতালে মৃতদেহ পাঠিয়ে সেখানে ময়নাতদন্ত করাতে হবে। এ ছাড়াও উচ্চপর্যায়ের তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে হবে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only