শনিবার, ৫ ডিসেম্বর, ২০২০

‘গ্রাহকদের স্বার্থ দেখা আরবিআইয়ের প্রাথমিক কর্তব্য’, মানুষের ভীতি কাটাতে মন্তব্য আরবিআই গভর্নরের



পুবের কলম প্রতিবেদকঃব্যাঙ্কের গ্রাহকদের ভীতি কাটাতে শুক্রবার রিজার্ভ ব্যাঙ্কের (আরবিআই) গভর্নর শক্তিকান্ত দাস বলেছেন, আরবিআই সবসময় আইনের পরিকাঠামোর মধ্যে থেকে কাজ করে। আরবিআই-এর প্রাথমিকতা হল গ্রাহকদের স্বার্থরক্ষা করা। এটা করতে গিয়ে আইনের গণ্ডির মধ্যে থেকে আরবিআই সব সম্ভব প্রয়াস করবে। প্রসঙ্গত, গত এক বছরে তিনটি ব্যাঙ্ক লক্ষীবিলাস ব্যাঙ্ক, ইয়েস ব্যাঙ্ক এবং পঞ্জাব ও মহারাষ্ট্র কো-অপারেটিভ ব্যাঙ্কের লেনদেনের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছিল আরবিআই। লক্ষীবিলাস ব্যাঙ্কের উপর থেকে নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়া হয়েছে গত সপ্তাহে। ডিবিএস ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার সঙ্গে মিশে গেছে লক্ষীবিলাস ব্যাঙ্ক। কেন্দ্রীয় সরকার এই প্রকল্প অনুমোদন করার পরেই লক্ষীবিলাস ব্যাঙ্কের লেনদেনের উপর নিষেধাজ্ঞা তোলা হয়েছে। তেমনি ইয়েস ব্যাঙ্ককে পুনরুজ্জীবিত করতে সাহায্য নেওয়া হয়েছে স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার। বিভিন্ন সময় এই সব ব্যাঙ্কের গ্রাহকদের তাদের অ্যাকাউন্ট থেকে টাকা তোলার উপর নিষেধাজ্ঞা বলবৎ ছিল। এর ফলে গ্রাহকদের মধ্যে স্বাভাবিক কারণেই ভীতি ছড়িয়ে পড়ে। এই ভীতি কাটাতেই এ দিন তাঁর বক্তব্যে গ্রাহকদের আশ্বস্ত করতে চেয়েছেন আরবিআই গভর্নর। তিনি এ দিন বলেন, আর্থিক স্থিতিশীলতা বজায় রাখা এবং গ্রাহকদের স্বার্থ সুরক্ষিত রাখাই আরবিআইয়ের প্রাথমিকতা। তিনি এটি বোঝাতে ইয়েস ব্যাঙ্ক এবং লক্ষীবিলাস ব্যাঙ্কের প্রসঙ্গ টানেন। তিনি বলেন, এই দু’টি সমস্যা জর্জরিত ব্যাঙ্কেই এখন স্বাভাবিক কাজকর্ম হচ্ছে।

ডিজিটাল পেমেন্ট-এর সুরক্ষা এবং পরিষেবা আরও উন্নতমানের করার জন্য আরবিআই শীঘ্রই ডিজিটাল পেমেন্ট সিকিউরিটি কন্ট্রোলের ব্যবস্থা করবে বলে জানিয়েছেন গভর্নর। এইচডিএফসি ব্যাঙ্কের উপর ডিজিটাল পরিষেবা বন্ধের নির্দেশ দেওয়ার একদিন পর আরবিআই গভর্নরের ডিজিটাল পেমেন্ট সিকিউরিটি কন্ট্রোল নিয়ে প্রতিশ্রুতি গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করছে সংশ্লিষ্ট মহল।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only