শুক্রবার, ৮ জানুয়ারী, ২০২১

টিকা না নিলে উমরাহ নয়ঃ সউদি সরকার



পুবের কলম আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ এবার উমরাহকারীদের জন্য করোনার টিকা নেওয়া বাধ্যতামূলক বলে ঘোষণা করল সউদি আরবের হজমন্ত্রক। অর্থাৎ ভ্যাকসিনকে উমরাহের পূর্ব শর্ত করে দেওয়া হল। যেকোনও দেশ থেকে পবিত্র উমরাহে গেলে তাঁদেরকে অতি অবশ্যই করোনার প্রতিষেধক টিকা নিতে হবে। বুধবার জেদ্দায় সাংবাদিক সম্মেলনে একথা জানান আরবের হজ ও উমরাহমন্ত্রী মুহাম্মদ সালেহ বেনটেন। উল্লেখ্য,এ দিন তিনি নিজেও কোভিড ভ্যাকসিন নেন। যদিও ৪ অক্টোবর থেকে তিন দফায় ১৫ দিন করে উমরাহ হয়েছে এবার। প্রথম দু’দফায় কেবলমাত্র সউদিতে বসবাসরত ও কর্মরত এবং স্বদেশি নাগরিকদের উমরাহে অনুমতি দেওয়া হয়। 

তৃতীয় দফায় ১ নভেম্বর থেকে বিদেশিদেরকেও উমরাহে শামিল করা হয়। কিন্তু তাদের কারও শরীরে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়নি। তবে প্রত্যেক দফাতেই মাস্ক এবং যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মানাকে আবশ্যিক করেছিল সউদি আরব সরকার। অতিমারি সংক্রান্ত স্বাস্থ্যমন্ত্রকের গাইডলাইন অমান্য করলে জেল ও জরিমানার কথা ঘোষণা করেছিল হজমন্ত্রক। এবার নতুন করে উমরাহকারীদের জন্য করোনার টিকা নেওয়াকে বাধ্যতামূলক করা হল। টিকা না নিলে উমরাহের জন্য ভিসা বা ছাড়পত্র মিলবে না। বিশেষ করে অতি সম্প্রতি ইউরোপ সহ প্রায় ৪০টা দেশে নতুন ধরনের আরও শক্তিশালী করোনার স্ট্রেন ও সংক্রমণ দেখা দেওয়ায় এবার আরও সাবধানী পদক্ষেপ করছে সউদি আরবের হজ ও উমরাহমন্ত্রক। মন্ত্রী সালেহ বেনটেন আরও বলেন, যেকোনও বিদেশি নাগরিক উমরাহ করতে চাইলে নির্দিষ্ট অ্যাপের সাহায্যে নাম নিবন্ধন করে করোনার টিকা নেওয়ার প্রমাণ দেখাতে হবে। একইসঙ্গে মাস্ক, স্যানিটাইজার, দূরত্ব মেনে চলা সহ অন্যান্য স্বাস্থ্যবিধিও মানতে হবে। হজমন্ত্রীর কথায়, পবিত্র উমরাহ এবং হজ মুবারকের জন্য সারাবিশ্ব থেকে মুসলিমদের আগমন হচ্ছে এবং হবে। তাই করোনাকালে বিষয়টা খুবই স্পর্শকাতর। সেজন্য পূর্বসতর্কতামূলক যাবতীয় রীতিবিধি অবশ্যই মেনে চলতে হবে। যাতে সকলেই সুষ্ঠুভাবে উমরাহ সম্পন্ন করে সুস্থ শরীরে নিজ নিজ দেশে ফিরে যেতে পারেন, সেটা সুনিশ্চিত করতেই টিকা নেওয়াকে আবশ্যিক করা হচ্ছে। 


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only