বুধবার, ৩১ মার্চ, ২০২১

ভোটের ছায়া মেটিয়াবুরুজের পোশাক শিল্পেও, চৈত্র সেল ও ১লা বৈশাখের বাজারেও বিক্রিতে মন্দা

আবদুল ওদুদ

২০২০ সালে দেশজুড়ে লক ডাউনের কারনে সমস্ত কিছুই স্তব্ধ হয়ে পড়েছিল ব্যবসা. অফিস আদালত সব কিছুই বন্ধ হয়ে পড়েছিল বিশেষ করে ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছিল ব্যবসা বাণিজ্যের সঙ্গে জড়িত ব্যবসায়ীরা গোটা দেশের সঙ্গে লকডাউনে স্তব্ধ হয়েছিল মেটিয়াবুরুজের পোশাক শিল্পের সঙ্গে যুক্ত ওস্তাগার,  কারিগর, আইরনম্যান কাটিং মাস্টার ঠেলা ওয়ালা প্যাকিং কাজের সঙ্গে যুক্তরা আর এই লক ডাউনের কারনে গত বছরে চৈত্র সেলের ব্যবসারও বিপুলক্ষতি হয় বাদ যায়নি ঈদ-উল-ফিতর কিংবা ঈদ-উল-আযহার লকডাউনের শুরুতেই ধাক্কা খেয়েছিল চৈত্র সেলের ব্যবসা পুরোপুরি লক ডাউনে কোন দোকান কিংবা শপিং মল খোলা না থাকায় বিপুল ক্ষতির মুখে পড়েন মেটিয়াবুরুজের ব্যবসায়ীরা



এবছর সেই লকডাউনের বিভীষিকা ভুলে নতুন করে বাঁচার স্বপ্ন দেূতে শুরু করেছিল মেটিয়াবুরুজের পোশাক শিল্পের সঙ্গে যুক্ত ব্যবসায়ীরা কিন্তু এবছর লকডাউন না হলেও রাজ্য বিধানসভা এবং অসম- বিধানসভা নির্বাচনে মার খাচ্ছে মেটিয়াবুরুজের পোশাক শিল্পে নির্বাচনের ছায়ায় এবছরও লাভের আশা দেূছেন না ব্যবসায়ীরা চৈত্র সেলকে কেন্দ্র করে একটা বড় বাজারের আশায় থাকেন ব্যবসায়ীরা কিন্তু ভোটের দাপাদাপিতে এবছরও চৈত্র সেলের বাজার পাচ্ছেন না ব্যবসায়ীরা ফলে লক ডাউনের মতোই ক্ষতির সম্মুখীণ  হতে হচ্ছে ব্যবসায়ীদের বলে জানালেন ব্যবসায়ী বাদশা গাজি

মঙ্গলবার তিনি জানান, গত বছর লক ডাউনে ব্যবসা বন্ধছিল এবার ভোটের কারণে চৈত্রসেলের বাজার পাওয়া যাচ্ছে না লা বৈশাখ এবং চৈত্র সেলের দিকেও তাকিয়ে থাকে ব্যবসায়ীরা কিন্তু ভোট শুরু হওয়ায় একেবারে বিক্রিবাট্টা নেই কারূানায় কর্মী থাকলেও অর্ডার না থাকার কারনে বসে বসে সময় কাটছে শ্রমিকদের

মেটিয়াবুরুজের ছোট ছোট ব্যবসায়ীদের মধ্যে জাকির হোসেন গাজি বলেন ব্যবসায়ী থেকে শুরু করে জেলার দোকান দারও আশা করে ছিল এবছর বৈশাখ কিংবা চৈত্র সেলে পোশাক বিক্রি হবে কিন্তু ভোটের জন্য বাজার মার খাচ্ছে জেলা থেকে ক্রেতা ভয়ে আসতে পারছে না সামান্য বেচাকেনা হচ্ছে ব্যবসায়ীরা কতটা আশা করেছিল তার সিকিভাগও হচ্ছে না আবার পুলিশের হয়রানীর ভয়ে অনেকে আসছে না ফলে এবারওক্ষতি গ্রস্থ হচ্ছে ব্যবসায়ীরা

অপর এক ব্যবসায়ী আনসার আলি খান জানান, মেটিয়াবুরুজের ব্যবসার বাজার  গোটা দেশ জুড়ে বিখ্যাত। উত্তর থেকে দক্ষিণ ভারতেও যান, এখনকার তৈরি পোশাক অসমেও বড় বাজার রয়েছে কিন্তু অসমেও ভোট থাকায় ব্যবসায়ীরা আসতে পারছেন না ফলে মার খাচ্ছে ব্যবসা অনেকে পুলিশি হয়রানীর আশঙ্কায় কলকাতা আসছেন না পোশাক কিনতে তিনি বলেন, মেটিয়াবুরুজের পাশাপাশি হাওড়ার মুন্সির হাট,  বাঁকড়া,  উনসানীতে প্রচুর ওস্তাগার রয়েছেন তারাও তাকিয়ে ছিলেন লা বৈশাখের দিকে কিন্তু ভোটের কারণে সেই ব্যবসা অনেকটাইক্ষতিগ্রস্থ ভোট পর্ব মিটে গেলে ঈদ-উল-ফিতরের অেপক্ষায় থাকতে হবে মেটিয়াবুরুজের ব্যবসায়ীদের বলে তিনি মন্তব্য করেন 

 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only