সোমবার, ২২ মার্চ, ২০২১

বিজেপির ইশতেহার অডিও ক্যাসেটের মতো, শোনা যায় কিন্তু দেখা যায় না: অভিষেক

সুরজ মিশ্র,পূর্ব মেদিনীপুর: বহিরাগত নেতারা বাংলা বলতে পারে নাবাংলা পড়তে পারে নাবাংলায় কথা বলতে পারে নাবাংলায় কি লেখা আছে পড়তে পারবে নাবাংলার কৃষ্টিসংস্কৃতিইতিহাস কিচ্ছু জানে না তারা নাকি সোনার বাংলা করবে কালকে ইশতেহার প্রকাশ করেছে দুঘণ্টা ধরে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ভাষণ দিয়েছে এদের এমন দুর্দশা বাংলার নির্বাচনের জন্য ইশতেহার প্রকাশ করছে একদিকে গুজরাটের এক ভদ্রলোক আরেকদিকে মধ্যপ্রদেশের এক ভদ্রলোক হিন্দিতে ইশতেহার প্রকাশ করছে আর বলছে সোনার বাংলা গড়ব



রবিবার কলকাতা থেকে বিজেপির  ইশতেহার প্রকাশের  ঠিক পরের দিন পূর্ব মেদিনীপুর জেলার মহিষাদলের জনসভা থেকে বিজেপির ইশতেহার নিয়ে কটাক্ষ করলেন রাজ্য যুব তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। সোমবার মহিষাদলের জনসভা তমলুকের পথসভা  থেকে অভিষেক বলেন, কালকে বিজেপি ইশতেহার প্রকাশ করেছে কত ভাষণ, এই করব তাই করব আপনারা ২০১৪ ২০১৯ সালে যেগুলো বলেছিলেন করেননি কেন? বিজেপির ইশতেহার অডিও ক্যাসেটের মতো, শুধু শোনা যায়, চোখে,দেখা যায় না আর তৃণমূলের ইশতেহার হাইকোয়ালিটির ডিভিডি শোনাো যায় আর দেখাও যায়।

বিজেপির সোনার বাংলা গড়ার প্রতিশ্রুতি নিয়ে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়, বিজেপিকে তুলোধোনা করে বলেন, ভারতবর্ষের প্রধানমন্ত্রী দুদিন আগে খড়্গপুরের সভা করে বলে গেছেন উন্নয়ন হবে বিজেপির উন্নয়নের মডেল আপনারা দেখেছেন বলছে সোনার বাংলা হবে এদের জিজ্ঞেস করুন ২০১৪ থেকে ২০২১ পর্যন্ত ভারতবর্ষের কেন্দ্রের সরকার আপনাদের হাতে কিন্তু তাও সোনার ভারতবর্ষ হয়নি কেন? আপনারা দু'দশক ধরে মধ্যপ্রদেশগুজরাটের মতো জায়গায় ক্ষমতায়। সোনার মধ্যপ্রদেশ ও সোনার গুজরাট হয়নি কেন? আর এখন বলছে সোনার বাংলা গড়ব সোনা আর বলতে পারছে না, বলছে সুনার বাংলা বাংলা বলতে পারে না তাই পেছন থেকে কেউ একটা বলে দিচ্ছে আর ওটা শুনে বলে দিচ্ছে আমি চ্যালেঞ্জ করছি যারা বলছে সোনার বাংলা করব একটা মঞ্চে একদিকে আপনি দাঁড়াবেন আরেকদিকে আমি দাঁড়াব আপনাকে চ্যালেঞ্জ দিয়ে গেলাম আমার বয়স ৩৩, আর আপনাদের কারোর ৬৫৭০৬২৬৪ কোন কাগজ ছাড়া আর টেলিপ্রমটার ছাড়া দুমিনিট বাংলায় কথা বলে দেখান আমি সবাইকে বলব আমি চ্যালেঞ্জ দিয়ে গেলাম একপ্রান্তে আপনি দাঁড়াবেন, আরেক প্রান্তে আমি দাঁড়াব আপনি দুমিনিট বাংলা বলবেন কাগজ ছাড়া আর আমি একঘন্টা হিন্দি বলব কাগজ ছাড়া ক্ষমতা থাকলে আপনি চ্যালেঞ্জ একসেপ্ট করুন অভিষেক 'স্বাস্থ্যসাথী' আর আয়ুষ্মান ভারতের সঙ্গে তুলনা করে বলেন, আয়ুষ্মান ভারত কেন্দ্রীয় সরকার ১০কোটি মানুষের মধ্যে দিতে চেয়েছিল শুধুমাত্র ১০শতাংশ লোককে শুধুমাত্র ১কোটি লোককে বাকি সাড়ে ৯ কোটি লোক কোনও পরিষেবা পাবে না কিন্তু মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছেন আমি যখন নির্বাচিত মুখ্যমন্ত্রী আমার কোনও জাতি ধর্ম নেই আমার একটাই ধর্ম সেটা মানব ধর্ম আমি যদি পরিষেবা দিই, বাংলার প্রত্যেক বাড়িতে সেই পরিষেবা যাবে তাই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের শুরু করল 'স্বাস্থ্যসাথী' শুনে রাখুন আয়ুষ্মান ভারতে মাথার ওপর ছাদটা যদি পাকা থাকে, আপনার বাড়ির কোনও পরিবারের সদস্যরা হাতে যদি স্মার্ট ফোন থাকে, বাড়িতে কারোর যদি মোটরসাইকেল থাকে, বাড়িতে টিভি থাকলে আয়ুষ্মান ভারত পাবেন না আর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের স্বাস্থ্য সাথী কিছু থাকলেও পাবে, আর না থাকলেও পাবে। এদিন অভিষেক বিজেপির বিরুদ্ধে চাঞ্চল্যকর অভিযোগ তুলে বলেন২০১৪সালে ভারতবর্ষে বিজেপি সরকার  প্রতিষ্ঠা হওয়ার পর প্রতি বছর বাংলা থেকে ৭৫হাজার কোটি টাকা কেটে নিয়ে যায় ৭ বছরে সংখ্যাটা ৫লক্ষ ২৫হাজার কোটি টাকা বাংলা থেকে কেটে নিয়ে গেছে

 

 

 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only