শুক্রবার, ২৬ মার্চ, ২০২১

যারা শ্যামাপ্রসাদের ছবি পোড়ায়, বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙে, তারা কি দেশের সেবা করবে? সোচ্চার মমতা

পুবের কলম, চন্দ্রকোণা: ভোটের প্রচারে আজ ফের বহিরাগত ইস্যুতে সোচ্চার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। শুক্রবার চন্দ্রকোণা থেকে মমতা বলেন, বিজেপির মতো শয়তানের দল দেশে একটাও নেই। যারা শ্যামাপ্রসাদের ছবি পোড়ায়, বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙে, তারা কি দেশের সেবা করবে?



মমতা এদিন সভামঞ্চ থেকে বলেন, আমরা সব ধর্মকে সম্মান জানাই। আমাকে হিন্দু ধর্ম শেখাতে হবে না। আমি ব্রাহ্মণ পরিবারের মেয়ে। এদিন তিনি বলেন, উত্তরপ্রদেশ থেকে এখানে গুন্ডা পাঠাচ্ছে, নিজেরা হিন্দু সেজে ঘুরে বেড়াচ্ছে। দাড়ি রাখলেই সকলে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর হয় না।

ইদানীং প্রচারে এলেই কেন্দ্রীয় নেতা–মন্ত্রীদের মতুয়া, নমশুদ্রদের বাড়িতে খেতে দেখা যাচ্ছে। মমতা এদিন বলেন, মতুয়াদের বাড়িতে রান্নার সময় দেখা যাচ্ছে তারা পুঁইশাক রান্না করছে, আর যখন দেখছি ওদের খাওয়ার পাতে দেখছি, পোস্ত দিয়ে মেখে খাচ্ছে।

মমতা এদিন, কটাক্ষ করে বলেন, ঘাটাল মাস্টার প্ল্যান তৈরিতে বাঁধা দিচ্ছে কেন্দ্র।

উন্নয়নের কথা তুলে তিনি বলেন, রাজ্যের মানুষের জন্য উন্নয়ন করে দেওয়া হয়েছে, কন্যাশ্রী, সবুজশ্রী, সবুজশ্রী, রূপোশ্রী সব সুবিধা করে দেওয়া হয়েছে। ক্ষমতায় আসলে রেশন মানুষের ঘরে ঘরে পৌঁছে যাবে।

অন্যদিকে এদিন ডেবরা থেকেও একইভাবে সরব হন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি এদিন বলেন, বাংলায় জন্ম, বাংলাতেই মৃত্যু, আর উত্তরপ্রদেশ থেকে কিছু গুন্ডা ঢুকিয়ে দিচ্ছে। আর এখানে তারা হিন্দু সেজে ঘুরে বেড়াচ্ছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only