মঙ্গলবার, ৬ এপ্রিল, ২০২১

দশম শ্রেণির ছাত্রীর শ্লীলতাহানি, কেন্দ্রীয় বাহিনীর বিরুদ্ধে নালিশ তৃণমূলের

পুবের কলম প্রতিবেদক: রাজ্যের শাসকদল প্রথম থেকেই অভিযোগ করে আসছে কেন্দ্রীয় বাহিনীর ভোটারদের ভয় দেখাচ্ছে। কোথাও কোথাও ভোট প্রদানে বাধা দিচ্ছে বলেও অভিযোগ। বিজেপির হয়ে কাজ করারও অভিযোগ তুলেছে রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেস। এবার সেই অভিযোগের সঙ্গে জুড়ল ছাত্রীর শ্লীলতাহানির ঘটনাও। আর তা নিয়েই উত্তপ্ত হুগলির তারকেশ্বর। বিষয়টার উপর নজর দেওয়া হোকনেওয়া হোক কড়া ব্যবস্থা। ঠিক এভাবেই রীতিমত নির্বাচন কমিশনে চিঠি দিলেন তৃণমূলের রাজ্যসভার সাংসদ ডেরেক ব্রায়েন।



উল্লেখ্য, হুগলির তারকেশ্বেরর ১৬৮ বুথের রামনগর প্রাথমিক স্কুলে আটজন জওয়ানের থাকার ব্যবস্থা করে প্রশাসন। অভিযোগতৃতীয় দফার ভোটের আগেসোমবার রাতে দশম শ্রেণির এক নাবালিকার শ্লীলতাহানির চেষ্টা করে কেন্দ্রীয় বাহিনীর এক জওয়ান। নির্যাতিতার চিৎকারে ছুটে আসেন গ্রামবাসী। তারপর উত্তপ্ত হয়ে ওঠে গোটা এলাকা। জানা গিয়েছেওই নাবালিকা বন্ধুর বাড়ি থেকে বই আনতে বের হয়েছিল। সেই সময় রাস্তা ফাঁকা ছিল। অভিযোগছাত্রীকে একা পেয়ে তার মুখে কাপড় চাপা দিয়ে স্কুলের পাশের জঙ্গলে নিয়ে যান অভিযুক্ত জওয়ান। নির্যাতিতার চিৎকারে ছুটে আসেন গ্রামবাসী। বিপদ বুঝে অভিযুক্ত জওয়ান স্কুলের ঘরে আশ্রয় নেন। যদিও তাঁকে ঘিরে বিক্ষোভে ফেটে পড়েন স্থানীয় বাসিন্দারা। মারধর করা হয় বলেও খবর। পরে স্থানীয় থানার পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

মঙ্গলবার তৃণমূলের তরফে রাজ্যের মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিকের কাছে লিখিত অভিযোগ জানানো হয়েছে। ওই চিঠিতে ঘটনার পূর্ণাঙ্গ বিবরণ দেওয়া হয়েছে। জানানো হয়েছেবিষয়টা নিয়ে থানায় অভিযোগ এফআইআর করা হয়েছে। আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়েও উদ্বেগ প্রকাশ করেছে তৃণমূল। ডেরেক ব্রায়েন দাবি করেনঅভিযুক্তের বিরুদ্ধে দ্রুত তদন্ত শুরু করতে হবে এবং আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। তিনি আরও দাবি জানানতারকেশ্বর বিধানসভার বাসিন্দাদের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে হবে এবং অবাধ নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে হবে।

 

 

 

                                                                                                                                                                                           

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only