রবিবার, ৩০ মে, ২০২১

বিমান দুর্ঘটনা, মৃত্যু চালক সমেত সাত যাত্রীর

 

 



পুবের কলম, ওয়েবডেস্ক: বিমান দুর্ঘটনায় মর্মান্তিক মৃত্যু হল সাত জনের। টেনেসিতে লেকের ওপরে ভেঙে পড়ে বিমান। ঘটনায় জোরকদমে চলচ্ছে উদ্ধারকার্য। শনিবার স্থানীয় সময় অনুযায়ী সকাল ১১টা নাগাদ এই দুর্ঘটনা ঘটে।

বিমানবন্দর থেকে যাত্রা করার কিছুক্ষণ পরেই, স্মারনা ন্যাশভিলের কাছে পার্সি প্রিস্ট লেকে ভেঙে পড়ে বিমান। দুর্ঘটনায় বিমান চালক সমেত ৭ জন মারা গিয়েছেন। সাত জনের মধ্যে ছিলেন ডায়েট গুরু গোয়েন শাম্বিন লারা এবং তার স্বামী জো লারা।দুজনেরই মৃত্যু হয়েছে। বিমানে ব্র্যান্ডউডের রিম্যান্ট ফেলোশিপের অন্যান্য সদস্যরা ছিলেন। সকলকেই মৃত বলে ঘোষণা করেছে প্রশাসনিক আধিকারিকরা।

ফেডারাল এভিয়েশনের আধিকারিকের এক বিবৃতি সূত্রে জানা গেছে, সিসনা সি ৫০১ জেট প্লেন সকাল ১১ টার দিকে কাছের বিমানবন্দর থেকে যাত্রা শুরু করে তবে স্মারনা কাছে পার্সি প্রিস্ট লেকের আচমকা ভেঙে পড়ে যায়। তবে কি কারণে এই দুর্ঘটনা তা এখনও জানা যায়নি। ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে। রাদারফোর্ড কাউন্টির উদ্ধারকর্মীরা খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে উদ্ধারকাজ শুরু করেন।

তবে রাদারফোর্ড কাউন্টি ফায়ার রেসকিউ অপারেশনের ক্যাপ্টেন জোশুয়া স্যান্ডার্স এক সাংবাদিক সম্মেলনে ইঙ্গিত দিয়েছেন যে, এই বিমান দুর্ঘটনায় বাকি যাত্রীদের বেঁচে থাকার সম্ভাবনা কম। তবে জোরকদমে উদ্ধারকায চলছে।

প্রথমে জানা যায়, একজন মারা গিয়েছে। তার পর উদ্ধারকাজ শুরু হতেই গোটা চিত্র সামনে আসতে থাকে। উদ্ধারকারীরা প্লেনের ধ্বংসাবশেষ সনাক্ত করতে পেরেছে। স্যান্ডার্স জানিয়েছে, গোটা ঘটনাটি লেকের উপরে হয়েছে তাই উদ্ধারকাজ করতে একটু দেরি হচ্ছে। স্মারনা রাদারফোর্ড কাউন্টি বিমানবন্দর থেকে পাম বিচ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের দিকে যাচ্ছিল বিমানটি, তখন এই দুর্ঘটনা ঘটে।

যদিও কর্তৃপক্ষ বিমানের রেজিস্ট্রেশন সম্পর্কিত কোনও তথ্য জানায়নি। টেনেসির এক স্থানীয় সংবাদ মাধ্যম জানিয়েছে, বিমানটিকে একটি মেরিনার কাছাকাছি জলে ধীরে ধীরে ডুবে গিয়েছে। জাতীয় পরিবহন সুরক্ষা বোর্ড এবং এফএএ উভয়ই ঘটনাস্থলে তদন্ত শুরু করেছে।

 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only