বুধবার, ২ জুন, ২০২১

পুরোহিতদের জন্য টিকাদান কর্মসূচি কর্ণাটকে,দলিতদের ঘাড়ধাক্কা!

 


 

পুবের কলম ওয়েবডেস্কঃ দেশে করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ,ভ্যাকসিনের জন্য একপ্রকার কাড়াকাড়ি পড়ে গেছে।লম্বা লাইন দিতে হচ্ছে আমজনতাকে। তবুও মিলছে না মহার্ঘ্য কোভিড প্রতিষেধক। তবে চিন্তা নেই  কর্ণার্টকের বামুন পুরোহিতদের। খোদ রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে তাদের জন্য ভ্যাকসিনের ব্যবস্থা করা  হয়েছে।  ডা. সিএন অশ্বত নারায়ণ শুধুমাত্র হিন্দু পুরোহিতদের জন্য একটি টিকাদান শিবিরের আয়োজন  করেছিলেন। আর এটা নিয়ে যথেষ্ট বিতর্ক ছড়িয়েছে রাজ্যটিতে। কেন ধর্মীয় ভিত্তিতে এভাবে পুরোহিতদের টিকা দেওয়া হবে তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে কংগ্রেস। আনছে তোষণের অভিযোগ।

 

বেঙ্গালুরুর মল্লেশ্বরমের একটি বালিকা বিদ্যালয়ে এই শিবিরটির আয়োজন করা হয়েছিল। দলিতদের একটি দল কোভিড টিকা নেওয়ার জন্য ঘটনাস্থলে পৌঁছলে তাদেরকে তাড়িয়ে দেওয়া হয়। তাদেরকে  কোভিড  ভ্যাকসিন নিতে হাসপাতালে যেতে হবে।  এটা শুধু পুরোহিতদের জন্য স্পষ্ট জানিয়ে দেন উদ্যোক্তারা। তবে দলিতরা টিকা নিতে অনড় থাকায় দুপক্ষের মধ্যে বচসা হয়। এমনিতেই তারা বহু সুযোগসুবিধা থেকে বঞ্চিত। ভ্যাকসিন থেকেও কেন তাদের বঞ্চিত করা হবে এমন প্রশ্ন তোলেন তারা। আর এই প্রকাশ্য টিকাদান কর্মসূচিতে শুধুমাত্র ব্রাহ্মণ পুরোহিতদেরকেই কেন ভ্যাকসিন দেওয়া হবে? এ নিয়েও তারা প্রশ্ন তোলেন।  এভাবে উত্তেজনা তৈরি হলে দুপক্ষের মধ্যে হাতাহাতি হয়।

পুলিশ দিয়ে দলিতদের ঘাড়ধাক্কা দিয়ে অনুষ্ঠানস্থল থেকে বের করে দেওয়া হয় বলে অনেকের অভিযোগ। বিরোধী কংগ্রেস দল বিজেপির এই পদক্ষেপের নিন্দা করেছে। পার্টির মুখপাত্র লাবণ্য বাল্লা বলেন টিকাদান বর্ণভিত্তিক হয়েছে। এভাবে কি অন্য কাস্টকেও টিকা দেওয়া হবে? কুরুবা গৌড়া চেট্টি ভ্যাকসিন ড্রাইভ হবে? কংগ্রেস সাংসদ বি. কে. হরিপ্রসাদ বলেন যে বর্ণভিত্তিক টিকা দেওয়া দেখে বেশ মন খারাপ হয়েছিল। তিনি আরও জানান অভিযোগ জমা দেওয়া সত্ত্বেও পুলিশ ব্যবস্থা নিচ্ছে না। পুলিশকে বিজেপি নেতাদের জন্য নয় দেশের জন্য কাজ করা উচিত।


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

ভিন্ন স্বাদের খবর

...
আপনার ক্যাটাগরি নির্বাচন করুন

Whatsapp Button works on Mobile Device only